পূর্বধলায় ধান কাটা নিয়ে সংঘর্ষ : থানায় মামলা দায়ের

প্রকাশিত: ১২:০১ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১, ২০২০

নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলার আগিয়া ইউনিয়নের কালডোয়ার গ্রামে বে-আইনিভাবে ভয়ভীতি প্রদর্শন ও জমির ধান কাটার অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

জানা যায়, কালডোয়ার গ্রামের মোঃ জয়নাল (৫০) ও মোঃ হিরা মিয়া (৪৫) একই বাড়ীতে থাকে। তাদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয় ও জমি সংক্রান্ত বিষয়াদি নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ বিরোধ চলে আসছিল।

- Advertisement -

এ বিষয়ে মোঃ জয়নাল বলেন, আমি ক্রয় সূত্রে জমির মালিক হয়ে প্রায় ৪০ বছর যাবৎ উক্ত জমিটি ভোগ দখল করে আসছি। জমির কাগজপত্রসহ বিআরএস আমার নামে আছে। আমি জমিটিতে আমন ধান রোপন করি। গতকাল ৩০ অক্টোবর আনুমানিক সকাল ৯টায় মোঃ হিরা মিয়া ও তার লোকজন দা, কাচি ও লোহার রড নিয়ে আমার জমির আমন ধান কাটতে থাকে। আমি ধান কাটার সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ধান কাটার কারণ জিজ্ঞাসা করি। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে হিরা মিয়া ও তার লোকজন আমাকে মারপিট করতে আসে এবং বিভিন্ন ধরণের ভয়ভীতি দেখিয়ে খুনের হুমকি দেয়। আমাকে ঘটনাস্থল থেকে তাড়িয়ে দিয়ে তারা আমার জমির সব ধান কেটে নিয়ে যায়। এই ঘটনায় মোঃ জয়নাল বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামি করে পূর্বধলা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

জানতে চাইলে মোঃ হীরা মিয়া বলেন, আমার ছোট ভাই মোঃ জয়নালের কাছে ১৫ শতক জমি বিক্রি করছে। এই জমি আমাদের। জমির কাগজপত্র নিয়ে কোর্টে মামলা চলছে এবং বেশ কয়েকটি সালিশ দরবারও হয়েছে কিন্তু কোন মীমাংসা হয়নি। সে জমিতে ধান লাগিয়ে ফেলছে। তাই জমির ধান আমরা কেটে নিয়ে আসছি।

Exclusive: ভোক্তা পর্যায়ে আলুর দাম ৩৫ টাকা ! প্রভাব পড়েনি পূর্বধলায়

পূর্বধলা থানার এসআই তাপস বলেন, জমির ধান কাটা সংক্রান্ত বিষয়ে মোঃ জয়নাল থানায় অভিযোগ করলে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনি। স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তি মোঃ বাচ্চু মিয়ার কাছে ধান রেখে আসা হয়েছে। এই বিষয়টি মীমাংসা না হওয়া পর্যন্ত ধান ওখানেই থাকবে বলে জানান।