টিকা নিলে নারীর দাড়ি ও পুরুষের নারীকণ্ঠ হতে পারে: বলসোনারো

প্রকাশিত: ১:০৪ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৯, ২০২০
করোনার টিকা নিতে চান না ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জইর বলসোনারো, ছবি: এএফপি

অনলাইন ডেস্ক: করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) পর এ মহামারির টিকা নিয়েও বিদ্রূপ করেছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জইর বলসোনারো। তিনি মনে করেন, ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা নিলে মানুষ কুমিরে রূপান্তরিত হতে পারে বা নারীর দাড়ি গজাতে পারে। পুরুষকণ্ঠ পরিণত হতে পারে নারীকণ্ঠেও।

করোনা সংক্রমণের শুরু থেকেই এ ভাইরাসকে গুরুত্ব দিতে চাননি বলসোনারো। তিনি এটিকে সামান্য ফ্লু (সাধারণ জ্বর-সর্দি) বলে আখ্যায়িত করেছেন। এ সপ্তাহে তিনি টিকা নেবেন না বলে জানিয়েছেন।

করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) পর এ মহামারির টিকা নিয়েও বিদ্রূপ করেছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জইর বলসোনারো। তিনি মনে করেন, ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা নিলে মানুষ কুমিরে রূপান্তরিত হতে পারে বা নারীর দাড়ি গজাতে পারে। পুরুষকণ্ঠ পরিণত হতে পারে নারীকণ্ঠেও।

করোনা সংক্রমণের শুরু থেকেই এ ভাইরাসকে গুরুত্ব দিতে চাননি বলসোনারো। তিনি এটিকে সামান্য ফ্লু (সাধারণ জ্বর-সর্দি) বলে আখ্যায়িত করেছেন। এ সপ্তাহে তিনি টিকা নেবেন না বলে জানিয়েছেন।

এএফপি জানায়, গত বৃহস্পতিবার বলসোনারো বলেন, ‘ফাইজারের টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার কোনো দায় আমরা নেব না। যদি তুমি কুমিরে রূপান্তরিত হও, তাহলে সেটা তোমার সমস্যা।’

ব্রাজিলে কয়েক সপ্তাহ ধরে এই টিকা নিয়ে পরীক্ষা চলেছে। যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্যে টিকার ব্যবহার শুরু হয়েছে।

টিকা প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানগুলোকে ইঙ্গিত করে বলসোনারো বলেন, ‘যদি তুমি অতিমানব হয়ে যাও, যদি নারীর দাড়ি গজাতে শুরু করে অথবা পুরুষ নারীদের গলায় কথা বলতে শুরু করে, তাহলে কিছু করার থাকবে না।’ স্থানীয় সময় গত বুধবার টিকাদান কর্মসূচি শুরুর সময় বলসোনোরো বলেন, টিকা বিনা মূল্যে পাওয়া যাবে। তবে এটা বাধ্যতামূলক নয়।

এর পরদিনই ব্রাজিলের সুপ্রিম কোর্ট টিকা বাধ্যতামূলক বলে রুল জারি করেন। সুপ্রিম কোর্ট এ-ও বলেছেন, টিকা নিতে মানুষকে জোর করা যাবে না। জনসমাগমস্থলে টিকা না নেওয়া মানুষের প্রবেশে বাধা দিতে পারবে।

ব্রাজিলে ৭০ লাখের বেশি মানুষ করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। মারা গেছেন ১ লাখ ৮৫ হাজার মানুষ।

বলসোনারো বলেছেন, ‘ব্রাজিলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা অ্যানভিসা টিকার অনুমোদন দিলে যাঁরা চাইবেন, তাঁদের প্রত্যেকের কাছে টিকা সহজলভ্য করা হবে। তবে আমি টিকা নিতে চাই না। অনেকে বলছেন, আমি বাজে দৃষ্টান্ত তৈরি করছি। কিন্তু সেই বোকাদের আমি বলতে চাই, আমি করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে গেছি। আমার শরীরে অ্যান্টিবডি তৈরি হয়ে গেছে। তাহলে আমি আর কেন টিকা নেব?’

গত জুলাই মাসে করোনায় সংক্রমিত হন বলসোনোরো। তিন সপ্তাহের মধ্যে তিনি সুস্থ হন। করোনায় দ্বিতীয়বার সংক্রমিত হওয়ার সংখ্যা খুব কম। তবে কেউ দ্বিতীয়বার সংক্রমিত হবেন কি না অথবা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কত দিন থাকতে পারে, তা সুনির্দিষ্ট করে বলা কঠিন।

বাআ/এসএ